Page Nav

HIDE

Grid Style

GRID_STYLE

Post/Page

Weather Location

Breaking News:

latest

তিতা করলা খাওয়ার স্বাস্থ্য উপকারীতা!

করলা  স্বাদে তেতো হতে পারে তবে স্বাস্থ্যের দিক থেকে এটি খুব উপকারী। তিতা জাতীয় শাকসবজি বা ফলের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ঔষধি গুণ রয়েছে। তেতো করলা শুকনো গন্ধযুক্ত একটি শাকসবজি। এটি খাওয়ার পরে সহজে হজম হয়। ফসফরাস করলার মধ্যে পাওয়া য…



 করলা  স্বাদে তেতো হতে পারে তবে স্বাস্থ্যের দিক থেকে এটি খুব উপকারী। তিতা জাতীয় শাকসবজি বা ফলের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ঔষধি গুণ রয়েছে। তেতো করলা শুকনো গন্ধযুক্ত একটি শাকসবজি। এটি খাওয়ার পরে সহজে হজম হয়। ফসফরাস করলার মধ্যে পাওয়া যায় যা ক্লেমের অভিযোগ থেকে মুক্তি দেয়। তিতা করলাতে প্রোটিন, ক্যালসিয়াম, কার্বোহাইড্রেট, ফসফরাস এবং ভিটামিন থাকে। আসুন আমরা আপনাকে করলার গুণাবলী সম্পর্কে বলি।


করলা খাওয়ার উপকারিতা:


১) স্বাস্থ্য যত্নের ক্ষেত্রে তিতা খাওয়া উচিৎ। তিতা করলাতে ফসফরাস রয়েছে যার কারণে কফের অভিযোগ মুছে ফেলা হয়।


২) তিতা তেল আমাদের হজম শক্তি বাড়ায় যার ফলে ক্ষুধা বৃদ্ধি পায়।


৩) তিতা  ঠাণ্ডা, তাই এটি তাপ দ্বারা সৃষ্ট রোগগুলির চিকিৎসার জন্য উপকারী।


৪) হাঁপানির ক্ষেত্রে মশলা ছাড়াই করলার শাকসব্জী খাওয়া উপকারী।


৫) পক্ষাঘাতগ্রস্থ রোগীদের জন্য করলা খুব উপকারী। এজন্য পক্ষাঘাতগ্রস্থ রোগীকে অবশ্যই কাঁচা করলা খেতে হবে।


৬) বমি বমিভাব, ডায়রিয়া বা কলেরা থাকলে করলার মধ্যে কিছুটা জল এবং কালো নুন মিশিয়ে তা সঙ্গে সঙ্গে গ্রহণ করুন।


৭) তিতা করলা লিভার সম্পর্কিত রোগের এক নিরামন্ত্রক উপাদান

No comments