Top Ad 728x90

Sunday, 2 December 2018

, ,

আবার মানবিকতার ছবি রাজ্যে, এবার ত্রাতা আইনমন্ত্রী



ক্যানসার আক্রান্ত আবিরের পাশে দাঁড়ালেন  সরকারি সাহায্যপ্রাপ্ত ১২ টি ক্লাবের পক্ষ থেকে রবিবার  ৮০ হাজার টাকার সাহায্য তুলে দেওয়া হল ক্যান্সার আক্রান্ত আড়াই বছরের শিশুর পরিবারের হাতে।     দিন দুয়েক আগে এই সাহায্যর আশ্বাস দিয়েছিলেন  মন্ত্রী মলয় ঘটকের আপ্ত সহায়ক।  অন্য দিকে ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত আবিরের পাশে এবার সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিল বালুরঘাটের সাংসদ অর্পিতা ঘোষ।এ আই আই এমসে (AIIMS) চিকিৎসার পাশাপাশি দিল্লিতে থাকার খাওয়ার ব্যবস্থার আশ্বাস দেন সংসদ। আগামী ৫  ডিসেম্বর  দিল্লী  যাচ্ছেন  অর্পিতদেবী সেই সময়  আবিরের  চিকিৎসার ব্যবস্থা করবেন তিনি। দিল্লি থেকে বালুরঘাটে ফিরে পতিরামের ওই পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করবেন। আবিরের পরিবারের সঙ্গে দেখাও  করে সাংসদ অর্পিতা ঘোষ এমনটা সাংবাদিকদের জানান তিনি ।

প্রসঙ্গত পতিরাম গ্রাম পঞ্চায়েতের ঝাপুর্সির বাসিন্দা, পেশায় শ্রমিক গণেশ রায়ের এক মেয়ে ও দুই ছেলে।কয়েকবছর আগে কর্মসূত্রে তিনি স্বপরিবারে গুজরাতে গেছিলেন।বছরখানেক তাঁর ছোটো ছেলে আবির জ্বরে আক্রান্ত হয়। অনেক চিকিৎসার পরেও জ্বর না কমায় গুজরাতের এক বেসরকারি নার্সিংহোমে তাকে ভরতি করেন গণেশবাবু। চিকিৎসা চলাকালীন অবস্থায় ধরা পড়ে আবিরের শরীরে বাসা বেঁধেছে মারণ রোগ ব্লাড ক্যানসার। এরপর তার চিকিৎসার জন্য বাড়ি ফিরে আসেন গণেশবাবু। তারপর ছেলেকে প্রথমে বালুরঘাটের একটি বেসরকারি হাসপাতাল ও পরে বালুরঘাট জেলা হাসপাতালে ভরতি করান। কিন্তু, সেখানকার চিকিৎসকরা আবিরকে কলকাতা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে রেফার করেন। এরপর দশ মাস ধরে চলছে আবিরের চিকিৎসা। তাকে এখন পর্যন্ত সাতবার কেমো দেওয়া হয়েছে। বর্তমানে একটু সুস্থ। কিন্তু, চিকিৎসকরা জানিয়েছেন তাকে পুরোপুরি সুস্থ করতে গেলে বোন ম্যারো ট্র্যান্সপ্লান্ট করাতে হবে। এই খবর সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত হতেই সাহায্যের জন্য প্রথম এগিয়ে জান মন্ত্রী মলয় ঘটকের আপ্ত সহায়ক। এর পর আজ   রবি বার ৭৫ হাজার টাকা দিয়ে সাহায্যের হাত বাড়ায় সরকারি সাহায্যপ্রাপ্ত ১২ টি ক্লাব।

অন্য দিকে সাংসদ অর্পিতা ঘোষ দিল্লিতে এ আই আই এম সে চিকিৎসার সুবন্দোবস্ত করে দেবারো  অঙ্গিকার করেন।   

Share this post

0 σχόλια:

Post a Comment

Top Ad 728x90